অর্থনীতি পড়ে ক্যারিয়ার

অর্থনীতি পড়ে ক্যারিয়ার - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সময় যে প্রশ্নটি আমাদের সবার মাথায় প্রতিনিয়ত ঘুরপাক খায় সেটি হচ্ছে, “কোন বিষয় নিয়ে পড়াশোনা করবো?” এ প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে গিয়ে অর্থনীতি নামের বিষয়টির চিন্তা নিশ্চয়ই আপনার মাথায় একবার হলেও এসেছে। অনেকের মাঝে একটি ভুল ধারণা আছে যে, অর্থনীতি পড়ে ক্যারিয়ার গড়ার একমাত্র সুযোগ হলো অর্থনীতিবিদ হওয়া। কিন্তু এর কর্মক্ষেত্র মোটেই ছোট নয়। জেনে নেয়া যাক এ বিষয়ে ক্যারিয়ার গড়ার সম্ভাবনা নিয়ে।

অর্থনীতিতে পড়লে কোন ধরনের দক্ষতা গড়া যায়?

অর্থনীতি বিষয়টি আপনার মাঝে এমন কিছু দক্ষতা গড়ে তোলায় সহায়তা করবে যেগুলো চাকরিদাতারা আবেদনকারীদের মাঝে সবসময় খুঁজে বেড়ান। যে ক্যারিয়ারই নির্বাচন করুন না কেন, এ দক্ষতাগুলো প্রতিটি ক্ষেত্রেই আপনার কাজে লাগবে। এগুলো হলো:

  • যৌক্তিক চিন্তা করার ক্ষমতা
  • গাণিতিক দক্ষতা
  • সমস্যা সমাধান করার দক্ষতা
  • বিশ্লেষণী ক্ষমতা
  • গবেষণার দক্ষতা
  • অর্থনৈতিক জ্ঞান

অর্থনীতিতে পড়ে কোন কোন খাতে কাজ করা সম্ভব?

অর্থনীতির সাথে সরাসরি সম্পর্কিত খাতের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো:

  • অর্থনীতি বিষয়ক গবেষণা
  • ব্যাংকিং ও বীমা
  • বিনিয়োগ

উপরের খাতগুলো ছাড়া অন্য যেকোন খাতে ক্যারিয়ার গড়ার সুযোগ রয়েছে আপনার। এক্ষেত্রে আপনি নিচের বিষয়গুলোতে কাজ করতে পারেন:

  • ডাটা অ্যানালিসিস
  • আর্থিক পরিকল্পনা
  • হিসাবরক্ষণ
  • আর্থিক পরামর্শ
  • বিনিয়োগ বিশ্লেষণ

আপনি বিশেষায়িত চাকরিগুলোতে ঢুকতে চাইলে উচ্চতর ডিগ্রির দিকে নজর দিতে হবে। যেমন, শিক্ষক কিংবা গবেষক হতে চাইলে পিএইচডি সম্পন্ন করা উচিত। অর্থনৈতিক নীতিমালা নিয়ে কাজ করার ইচ্ছা থাকলেও একই শিক্ষাগত যোগ্যতা প্রয়োজন হবে।

অর্থনীতি পড়ে ক্যারিয়ার গড়ার জন্য করণীয় কী?

  • আপনি কোন খাতে ক্যারিয়ার গড়তে চান, সে সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলুন।
  • যে খাতে কাজ করতে চান তার অস্তিত্ব বাংলাদেশে আছে কিনা, সে ব্যাপারে খোঁজ নিন।
  • সাধারণ খাতের চাকরিতে আপনার আগ্রহ থাকলে শুধু অনার্স ডিগ্রি নেয়া যথেষ্ট।
  • সরকারি, বেসরকারি কর্পোরেট – কোন ধরনের চাকরি করতে চান, সে ব্যাপারে ভালোভাবে যাচাই-বাছাই করুন।
  • যে ধরনের কাজ করতে চান, সে কাজের প্রয়োজনীয় দক্ষতাগুলো অর্জনে সময় দিন।
  • স্পেশালাইজড চাকরিতে আগ্রহী হয়ে থাকলে ন্যূনতম মাস্টার্স ডিগ্রি নেবার প্রস্তুতি নিন। শিক্ষক হবার ক্ষেত্রে পিএইচডি করার ব্যাপারে খোঁজ রাখুন।
  • উচ্চতর শিক্ষা নেবার জন্য দেশ-বিদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় ও কোর্স নিয়ে তথ্য সংগ্রহ করুন।
Loading

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।