ইন্টার্নশিপ কীভাবে করবেন?

ইন্টার্নশিপ কীভাবে করবেন? - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

একটা সময় ছিলো যখন ইন্টার্নশিপ বলতে আমাদের দেশে মূলত মেডিক্যাল শিক্ষার্থীদের হাসপাতালে হাতে-কলমে প্রশিক্ষণ নেয়াকে বোঝানো হতো। সময়ের সাথে এ ধারণা বদলে গেছে। ফুল-টাইম চাকরি শুরু করার আগে বর্তমানে অনেকে ইন্টার্নশিপ করে থাকেন। আপনি একজন শিক্ষার্থী বা সদ্য গ্র্যাজুয়েট হয়ে থাকলে প্রফেশনাল কাজ শেখার জন্য এটি ভালো সুযোগ হতে পারে। ইন্টার্ন হিসাবে কাজ করার কিছু বিষয় নিয়ে এবার জেনে নেয়া যাক। অবশ্য টেকনিক্যাল বা সুনির্দিষ্ট কোন সেক্টর নিয়ে এখানে আলোচনা করা হবে না।

ইন্টার্নশিপ কীভাবে খুঁজবেন?

অনলাইন মাধ্যম: অনলাইনে ইন্টার্নশিপ খোঁজার জন্য সার্চ ইঞ্জিন ব্যবহার করতে পারেন। এর জন্য ব্রাউজারে “Internships near me” কিংবা আপনার জায়গার নাম অনুযায়ী (যেমন, “Internships in Chittagong”) সার্চ করুন।

চাকরি খোঁজার ওয়েবসাইট ও অ্যাপে ইন্টার্নশিপ খোঁজার সুবিধা রয়েছে। তবে এর জন্য ঠিকভাবে রেজাল্ট ফিল্টারিং করে নিন।

বর্তমানে ফেসবুকের মাধ্যমে চাকরি ও ইন্টার্নশিপ খোঁজা সম্ভব। এর জন্য সার্চ অপশন ব্যবহার করুন।

প্রতিষ্ঠানের ওয়েবসাইটে গিয়েও ইন্টার্নশিপ সম্পর্কে খোঁজ নিতে পারেন। অবশ্য এ কাজ বেশ সময়সাপেক্ষ ব্যাপার।

জব ফেয়ার: বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ছোট-বড় আকারের জব ফেয়ারের আয়োজন করা হয়। এগুলোতে অংশগ্রহণকারী নিয়োগদাতাদের সাথে কথা বলুন ও সম্ভব হলে নিজের সিভি জমা দিন।

নেটওয়ার্কিং: ইন্টার্নশিপ নিয়ে আপনার আগ্রহের কথা পরিচিত মানুষদের জানান। পাশাপাশি নতুন মানুষের সাথে আন্তরিক সম্পর্ক গড়ে তুলুন।

ক্যারিয়ার সেন্টার ও ক্লাব: কিছু সংখ্যক বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্যারিয়ার সেন্টার ও ক্লাব থাকে। আপনার শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এমন কোন সংগঠন থাকলে সেখানে যোগাযোগ করুন।

ইন্টার্নশিপের জন্য প্রস্তুতি কীভাবে নেবেন?

  • আপনি কোন ধরনের ইন্টার্নশিপ করতে চান, সে ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিন। কিছু প্রশ্ন বিবেচনায় রাখুন:
    • কোম্পানি নাকি এনজিওতে কাজ করতে চান?
    • প্রতিষ্ঠানের কোন বিভাগে কাজ করতে চান?
    • কোন মেয়াদের ইন্টার্নশিপ করতে চান?
    • ইন্টার্নশিপে কিছু বেতন দেয়া হচ্ছে কি?
    • বেতন ছাড়া শুধু অভিজ্ঞতা অর্জনের জন্য আপনি কি ইন্টার্ন হতে রাজি আছেন?
    • আপনার ক্যারিয়ার লক্ষ্যের সাথে ইন্টার্নশিপ কতটুকু সম্পর্কিত?
  • সাধারণ কয়েকটি দক্ষতা আপনার আছে কিনা, তা যাচাই করে নিন। যেমন:
    • এমএস অফিস (মাইক্রোসফট ওয়ার্ড, মাইক্রোসফট এক্সেল ও মাইক্রোসফট পাওয়ারপয়েন্ট)
    • প্রফেশনাল ইমেইল লেখা ও ইন্টারনেটের ব্যবহার
    • রিপোর্ট লেখা
    • যোগাযোগের দক্ষতা
  • ইন্টার্নশিপের বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী আপনার সিভি বা কভার লেটার তৈরি করুন
  • ইন্টারভিউর জন্য প্রস্তুতি নিন।

ইন্টার্নশিপের সময় করণীয় কী?

ধরা যাক, আপনি ইন্টার্নশিপ পেয়ে গেছেন। চেষ্টা করলে এ সুযোগকে খুব ভালোভাবে কাজে লাগাতে পারবেন।

  • যত বেশি সম্ভব, কাজ শিখে নিন। দক্ষতা অর্জনের জন্য বাস্তব কাজের চেয়ে ভালো উপায় আর নেই।
  • আপনার ম্যানেজার ও সহকর্মীদের সাথে ভালো সম্পর্ক গড়ে তুলুন। তাদের কাছ থেকেই কোন না কোন সময় প্রফেশনাল কাজে সাহায্য পাবার সম্ভাবনা বেশি।
  • ইন্ডাস্ট্রি সম্পর্কে খুব ভালোভাবে জানতে থাকুন। ফুল-টাইম চাকরি পাবার জন্য এটি জরুরি।
  • নিজের প্রফেশনালিজম সবার সামনে তুলে ধরুন। আপনার সম্পর্কে অন্যরা ভালো ধারণা পোষণ করবেন।

সর্বোপরি, গুরুত্ব সহকারে আপনার দায়িত্ব পালন করুন। ইন্টার্নশিপে আপনার পারফরম্যান্সের ভিত্তিতে হয়তো একই প্রতিষ্ঠানে ফুল-টাইম চাকরির প্রস্তাব পেতে পারেন। যদি তা সম্ভব নাও হয়, তাহলে অন্তত অন্য প্রতিষ্ঠানে আবেদন করার সময় ভালো রেফারেন্স পাবেন।

Loading

2 thoughts on “ইন্টার্নশিপ কীভাবে করবেন?

    1. আশা করি আর্টিকেলটা আপনার কাজে আসবে! 🙂

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।