দুর্যোগ ব্যবস্থাপক

দুর্যোগ ব্যবস্থাপক: ক্যারিয়ার প্রোফাইল - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

ভৌগোলিক অবস্থানগত দিক থেকে বাংলাদেশ একটি দুর্যোগপূর্ণ অঞ্চল। প্রায় সারা বছর জুড়ে সাইক্লোন, বন্যা, নদীভাঙ্গন, পাহাড়ধ্বস এর মত প্রাকৃতিক দুর্যোগ এই অঞ্চলের মানুষের নিত্য দিনের সঙ্গী। এছাড়াও খুব দ্রুত শিল্পায়ন এর ফলে সৃষ্টি হচ্ছে বিভিন্ন মানবসৃষ্ট দুর্যোগ। এই সব প্রাকৃতিক ও মানবসৃষ্ট দুর্যোগ মোকাবেলায় প্রয়োজন দুর্যোগ সম্পর্কিত জ্ঞান ও ব্যবস্থাপনা পদ্ধতি। এরই ফলশ্রুতিতে সৃষ্টি হয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা বা ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট বিভাগ।

এক নজরে একজন দুর্যোগ ব্যবস্থাপক

সাধারণ পদবী:ডিজাস্টার রিস্ক ম্যানেজমেন্ট কোর্ডিনেটর, হিউম্যানেটেরিয়ান অ্যাডভাইসর, প্রোগ্রাম অফিসার
বিভাগ:সামাজিক বিজ্ঞান
প্রতিষ্ঠানের ধরন:সরকারি/বেসরকারি
ক্যারিয়ারের ধরন:পার্ট টাইম/ফুল টাইম
লেভেল:এন্ট্রি/মিড
অভিজ্ঞতা সীমা:১ থেকে ২ বছর
এন্ট্রি/মিড লেভেলে সম্ভাব্য বেতনসীমা:২৫ থেকে ৩০ হাজার টাকা
সম্ভাব্য বয়সসীমা:২৫ থেকে ৩০
মূল স্কিল:ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট, ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ, সোশাল সায়েন্স এ স্নাতক/স্নাতকোত্তর
বিশেষ স্কিল:এডাপটিবিলিটি, আইটি, GIS, ডিজাস্টার রিস্ক রিডাকশন, মিটিগেশন, ল্যাঙ্গুয়েজ, কমিউনিকেশন

কোন ধরনের শিল্পে একজন ডিজাস্টার ম্যানেজার কাজ করেন?

ডিজাস্টার ম্যানেজার দুর্যোগ আক্রান্ত অঞ্চলে ক্রাইসিস ম্যানেজমেন্ট, রিলিফ, ট্রেনিং, মিটিগেশন ও সাস্টেইনেবল ডেভেলপমেন্ট সংক্রান্ত ফিল্ডে কাজ করে থাকেন। সাধারণত বেসরকারি বিভিন্ন এনজিওর দুর্যোগ ব্যাবস্থাপনা সম্পর্কিত প্রোজেক্ট এর ম্যানেজমেন্ট এর দায়িত্ব ও সরকারি দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয় এর অধীনে প্রোজেক্ট নির্ভর বিভিন্ন কাজ করেন।

একজন ডিজাস্টার ম্যানেজার কী ধরনের কাজ করেন?

  • লিডিং, মনিটরিং, প্ল্যানিং, কোঅর্ডিনেটিং, সাপোর্ট এর মাধ্যমে ইফেকটিভ ও এফিশিয়েন্ট প্রোজেক্ট নিশ্চিত করা;
  • ইমারজেন্সি রেসপন্স প্ল্যান আপডেট ও রিভিউ করা;
  • ইমারজেন্সি রেসপন্স এর টেকনিক্যাল স্ট্যান্ডার্ড এবং কোয়ালিটি নিশ্চিত করা;
  • প্রতিষ্ঠানের ক্যাপাসিটি উন্নয়ন করা, ইমারজেন্সি রেসপন্স প্ল্যান এর জন্য;
  • পটেনশিয়াল ইমারজেন্সি/ হিউম্যানেটেরিয়ান চাহিদাগুলো মনিটর করা, এবং টেকনিক্যাল বিষয়গুলো হিউম্যানেটেরিয়ান রেসপন্স প্ল্যানে ইনপুট করা। এইসাথে সিনিয়র ম্যানেজমেন্ট টিমকে পরামর্শ দেয়া;
  • প্রোজেক্ট রিলেটেড নোট তৈরি করা এবং ফান্ডিং প্রোপজাল প্রস্তুত করা;
  • নতুন টিম মেম্বারদের প্রোজেক্ট এর কাজের সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়া এবং স্টেকহোল্ডারদের রেসপন্স ম্যানেজম্যান্ট সম্পর্কে অভিহিত করা;
  • রিসার্চ এবং ডাটা কালেকশন করা। এবং সময়ের সাথে সাথে নতুন ইমারজেন্সি বিষয়গুলো খুজে বের করা;
  • লোকাল পার্টনারদের ক্যাপাসিটি বৃদ্ধি করার জন্য ট্রেনিং প্রদান করা;
  • ফ্রেমওয়ার্ক ডেভলপ ও ইমপ্লিমেন্টেশন করা।

একজন ডিজাস্টার ম্যানেজারের কী ধরনের যোগ্যতা থাকতে হয় ?

ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট, ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজ এবং সোশাল সায়েন্সে অনার্স অথবা মাস্টার্স। । একইসাথে এই বিষয়ক রিসার্চ ও ডাটা এনালিসিস করার যোগ্যতা খুবই গুরুতবপূর্ণ। এছাড়া টেকনিক্যাল সফটওয়্যার যেমন GIS এর পারদর্শীতা ও কোয়ালিটিটিভ ও কোয়ান্টিটিভ অ্যানালিসিস করার যোগ্যতা থাকতে হবে।

একজন ডিজাস্টার ম্যানেজার এর কী ধরনের দক্ষতা ও জ্ঞান থাকতে হয়?

  • DRR, CCA এবং DR সম্পর্কে ভাল ধারণা;
  • কাজের প্রায় ৪০% ভিন্ন জায়গার প্রোজেক্ট সম্পর্কিত হয়ে থাকে। কাজেই বিভিন্ন জায়গার ভ্রমনের মানসিক প্রস্তুতি থাকতে হবে;
  • হিউম্যানেটেরিয়ান রেসপন্স সম্পর্কিত টেকনিক্যান জ্ঞ্যান থাকতে হবে;
  • হিউম্যানেটেরিয়ান রেসপন্স সম্পর্কিত স্ট্যান্ডার্ড সম্পর্কিত জ্ঞ্যান থাকতে হবে। এছাড়া UN এর স্ট্যান্ডার্ড অনুযায়ী কোঅর্ডিনেট করারা জ্ঞান থাকতে হবে;
  • লং-টার্ম প্রোজেক্ট ইমপ্লিমেন্টেশন এর জন্য ভিশনারি এপ্রোচ ও ইমারজেন্সি প্রিপেয়ারডনেস মেইনস্ট্রিম করার সক্ষমতা থাকতে হবে;
  • লিডারশীপ;
  • লোকাল ল্যাংগুয়েজ;
  • ইংরেজি ও বাংলা ভাষার দক্ষতা
  • GIS সংশ্লিষ্ট সফটওয়্যার
  • প্রোজেক্ট সাইকেল ম্যানেজমেন্ট, মনিটরিং ও ইভ্যালুয়েশন সম্পর্কে ধারণা থাকতে হবে
  • রিসার্চ ও ডাটা কালেকশন সম্পর্কিত জ্ঞান থাকতে হবে
  • ইন্টারপার্সোনাল স্কিল ও বিভিন্ন কালচার এর মানুষের সাথে কাজ করার দক্ষতা থাকতে হবে।

কোথায় পড়বেন ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট?

বাংলাদেশে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট ডিপার্টমেন্ট খুব সম্পতিকালে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। এই ডিপার্টমেন্ট অতীতে মাস্টার্স কোর্স থাকলেও এখন স্নাতক পর্যায়ে ৪ বছর মেয়াদী কোর্স চালু হয়েছে। ঢাকা বিশ্ববিদালয়ের ইন্সটিটিউট অব ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট ভালনারেবিলিটি স্টাডিজ স্নাতক, স্নাতকোত্তর সহ পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ডিপ্লোমা, শর্ট কোর্স, পিএইচডি, এমফিল করার সুযোগ আছে। অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে আছে

  • বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রোফেশনালস (BUP);
  • পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (PSTU);

এইসকল বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতক/স্নাতকোত্তর করা যায়।
এছাড়া ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যলয়, ঢাকা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি (DIU) তে মাস্টার্স করার সুযোগ রয়েছে।

একজন ডিজাস্টার ম্যানেজারের কাজের ক্ষেত্র ও সুযোগ কেমন?

বাংলাদেশ একটি দুর্যোগপ্রবণ ও উন্নয়নশীল দেশ। প্রাকৃতিক ও মানবসৃষ্ট দুর্যোগ যেমন প্রতিনিয়ত ঘটছে সেই সাথে চলছে অবকাঠামো ও প্রাতিষ্ঠানিক উন্নয়ন প্রোজেক্ট। সেই হিসেবে এই সেক্টরে কাজের সুযোগ সর্বদা বিদ্যমান। এছাড়া এই সংক্রান্ত সরকারি কাজের সুযোগ বর্তমান সময়ে বৃদ্ধি পেয়েছে। দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের অধীনস্ত প্রকল্প গুলোতে কাজের সুযোগ অনেক। কেয়ার, অক্সফার্ম, ক্রিশ্চিয়ান এইড, উইনরক, ইউএনডিপি, ইউএইড এর মত যেমন আন্তর্জাতি প্রতিষ্ঠান রয়েছে তেমনি বাংলাদেশী এনজিওর মধ্যে ব্র্যাক উল্লেখযোগ্য। সাইক্লোন, বন্যা, পাহাড়ধসের ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় এইসব এনজিও নানাবিধ প্রোজেক্ট বিদ্যামান থাকে।

একজন ডিজাস্টার ম্যানেজারের মাসিক আয় কেমন?

এন্ট্রি লেভেলে ২৫ থেকে ৩০ হাজার টাকা মাসিক বেতন। যেহেতু এই সেক্টরে অধিকাংশ কাজ প্রোজেক্ট নির্ভর তাই প্রোজেক্ট ভিত্তিক বেতন কাঠামো সর্বাধিক লক্ষ্য করা যায়। এবং অভিজ্ঞতার সাথে সাথে স্যালারি বৃদ্ধি পায়। যেমন কনসার্ন ওয়ার্ল্ড ওয়াইড এর একটি প্রোজেক্টে মিড লেভেল স্যালারি ৭২৭২৫০ টাকা ১২ মাসের হিসেবে

ক্যারিয়ার কেমন হতে পারে একজন ডিজাস্টার ম্যানেজারের?

এই সেক্টরে রয়েছে বিভিন্ন আন্তর্জাতিক প্রতিষ্ঠানে কাজ করার সুযোগ। এইসাথে আন্তর্জাতিক মানের সুযোগ সুবিধা ও ভাতা। বাংলাদেশের আর্থসামাজিক অবস্থা বিবেচনায় এই পেশায় সুযোগ সুবিধা তুলনামূলক ভাবে বেশি। এছাড়া অধিকাংশ কাজ প্রোজেক্ট নির্ভর তাই কাজে রয়েছে বৈচিত্র ও নতুন অভিজ্ঞতার সুযোগ। ক্যারিয়ার হিসেবে ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট খুবই আকর্ষণীয়।

Loading

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।