সাংবাদিক

সাংবাদিক: ক্যারিয়ার প্রোফাইল - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

একজন সাংবাদিক মূলত সংবাদপত্র, ম্যাগাজিন, রেডিও, টেলিভিশন ও ওয়েব পোর্টালের জন্য খবর জোগাড় করা, সংবাদ ও কলাম লেখা, সম্পাদনা, পরিমার্জন, পরিবেশন ও ছবি সংগ্রহের কাজ করে থাকেন। আমাদের দেশের বিভিন্ন পর্যায়ে সাংবাদিকদের কাজের প্রচুর সুযোগ রয়েছে। সাংবাদিকতার ক্ষেত্র বেশ বড় হওয়ায় অনেকেই নির্দিষ্ট বিভাগে মনোযোগ দেন। যেমন, ক্রীড়া সাংবাদিকরা শুধু খেলাধুলা সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে কাজ করেন।

এক নজরে একজন সাংবাদিক

সাধারণ পদবী: সাংবাদিক
বিভাগ: গণমাধ্যম
প্রতিষ্ঠানের ধরন: সরকারি, বেসরকারি, ফ্রিল্যান্সিং
ক্যারিয়ারের ধরন: ফুল-টাইম, পার্ট-টাইম
লেভেল: এন্ট্রি, মিড
এন্ট্রি লেভেলে সম্ভাব্য অভিজ্ঞতা সীমা: কাজ ও প্রতিষ্ঠানসাপেক্ষ
এন্ট্রি লেভেলে সম্ভাব্য গড় বেতন: ৳২০,০০০ – কাজ, প্রতিষ্ঠান ও অভিজ্ঞতাসাপেক্ষ
এন্ট্রি লেভেলে সম্ভাব্য বয়স: কাজসাপেক্ষ
মূল স্কিল: ভাষাগত দক্ষতা, তথ্য অনুসন্ধানে দক্ষতা, উপস্থাপনার দক্ষতা, যোগাযোগের দক্ষতা
বিশেষ স্কিল: বিশ্লেষণী ক্ষমতা, সৃজনশীলতা

একজন সাংবাদিক কোথায় কাজ করেন?

  • গণমাধ্যমঃ সংবাদপত্র, ম্যাগাজিন, রেডিও, টেলিভিশন, সরকারি বার্তা বাতায়ন বিভাগ, অনলাইন নিউজ পোর্টাল
  • বিজ্ঞাপনী সংস্থা
  • প্রকাশনা সংস্থা
  • গবেষণা প্রতিষ্ঠান

প্রিন্ট ও অনলাইন মিডিয়াঃ বর্তমানে আমাদের দেশে বাংলা ও ইংরেজি মিলিয়ে প্রায় ৩২টি দৈনিক খবরের কাগজ ও ৪টি স্বীকৃত অনলাইন নিউজ পোর্টাল প্রতিদিন প্রকাশিত হচ্ছে। এগুলোতে সাংবাদিকতা করার বড় সুযোগ রয়েছে।

নিউজ এজেন্সির মধ্যে রাষ্ট্রীয় মালিকাধীন বাংলাদেশ সংবাদ সংস্থা ও বেসরকারিভাবে পরিচালিত ইউনাইটেড নিউজ এজেন্সিতে আপনি সম্পাদক, উপ-সম্পাদক বা কলাম লেখকের কাজ পেতে পারেন।

টিভি ও রেডিওঃ সরকারি ৩টি ও বেসরকারি প্রায় ২২টি টিভি চ্যানেল বাংলাদেশে সম্প্রচারিত হচ্ছে। সেখানে আলোকচিত্রী, প্রতিবেদক, উপস্থাপক, সম্পাদক, প্রযোজক, বার্তাকক্ষ নিয়ন্ত্রক হিসেবে কাজের ক্ষেত্র রয়েছে।

রাষ্ট্রায়ত্ত বাংলাদেশ বেতার ছাড়াও বর্তমানে বেসরকারি খাতে মোট ২৮টি এফ এম রেডিওকে লাইসেন্স ও ফ্রিকুয়েন্সি দেয়া হয়েছে। এগুলোতে মূলধারার সাংবাদিকতার পাশাপাশি সংবাদ পাঠক, উপস্থাপক, সম্পাদক, প্রতিবেদকসহ বহু পদে ইতোমধ্যে অনেকেই কাজ করছেন।

অন্যান্যঃ সরকারি ও বেসরকারি বহু কার্যালয়ে গণযোগাযোগ কর্মকর্তা রয়েছেন। তারা মুদ্রণ, পরিস্ফুটন, বিপণন ও যোগাযোগের কাজ করে থাকেন। এছাড়া বিজ্ঞাপনী সংস্থা ও চলচ্চিত্র বিভাগেও সাংবাদিকদের কাজের সুযোগ আছে।

অনেকে নির্দিষ্ট কোন প্রতিষ্ঠানের হয়ে কাজ না করে ফ্রিল্যান্সিং করে থাকেন।

একজন সাংবাদিক কী ধরনের কাজ করেন?

প্রতিষ্ঠানের ধরন অনুযায়ী একজন সাংবাদিকের কাজের ধরন আলাদা হয়। তবে যেকোন মাধ্যমে সাধারণ কিছু কাজ রয়েছে। যেমনঃ

  • সংবাদ সংগ্রহ করা;
  • সংবাদের সত্যতা যাচাই করা;
  • সংবাদ সম্পাদনা করা;
  • প্রয়োজনে মানুষের সাক্ষাৎকার নেয়া;
  • বিশেষ প্রতিবেদন তৈরি করা;
  • কলাম লেখা ও বাছাই করা;
  • তথ্য ও উপাত্ত বিশ্লেষণ করা;
  • প্রয়োজনীয় ছবি সংগ্রহ করা।

যেহেতু সাধারণ মানুষের জীবনে গণমাধ্যমের সরাসরি প্রভাব রয়েছে, সেহেতু বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করা একজন সাংবাদিকের গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বের মধ্যে পড়ে। এছাড়া সংবেদনশীল খবর প্রকাশের ক্ষেত্রে তথ্যদাতার গোপনীয়তা রক্ষা করা বাঞ্ছনীয়।

একজন সাংবাদিকের কী ধরনের যোগ্যতা থাকতে হয়?

শিক্ষাগত যোগ্যতাঃ প্রত্যেক সাংবাদিককে প্রাতিষ্ঠানিক সাংবাদিকতা বা গণযোগাযোগ বিষয়ে পড়তে হবে, এমন কোন কথা নেই। বাংলা, ইংরেজি সাহিত্য, অর্থনীতি, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক ও অন্যান্য বিষয়ে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর ডিগ্রিধারীরাও এ পেশায় নিয়োজিত আছেন। তবে সাংবাদিকতাকে পেশা হিসেবে আগে থেকেই যারা নির্বাচন করে রাখেন, তাদের জন্য সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিষয়ে পড়াই ভালো।

বয়সঃ প্রতিষ্ঠানসাপেক্ষে বয়সের সীমা নির্ধারিত হয়।

অভিজ্ঞতাঃ কাজ সাপেক্ষে অভিজ্ঞতা দরকার হয়।

একজন সাংবাদিকের কী ধরনের দক্ষতা ও জ্ঞান থাকতে হয়?

  • ভাষাগত দক্ষতাঃ বাংলা ও ইংরেজি – দুই ভাষাতে ভালো দখল থাকা জরুরি।
  • অনুসন্ধানী মনোভাবঃ কোন কিছুর ব্যাপারে অনুসন্ধান করে তথ্য সংগ্রহের মানসিকতা থাকতে হবে।
  • যোগাযোগের দক্ষতাঃ বিভিন্ন স্তরের মানুষের সাথে যোগাযোগের অভ্যাস থাকা প্রয়োজন।
  • উপস্থাপনার জ্ঞানঃ পাঠক বা দর্শক-শ্রোতার কাছে খবর উপস্থাপন করার ব্যাপারে জ্ঞান থাকতে হবে।
  • লেখালেখির দক্ষতাঃ বিভিন্ন ধরনের লেখালেখিতে অভ্যস্ত থাকা জরুরি এ পেশায়।
  • বিশ্লেষণী ক্ষমতাঃ কিছু ক্ষেত্রে শুধু তথ্য-উপাত্তের উপর নির্ভর না করে লেখায় বা সংবাদে যৌক্তিক চিন্তার প্রকাশ ঘটানো প্রয়োজন।

কারিগরি কিছু জ্ঞান থাকলে আপনি অন্য অনেকের চেয়ে এগিয়ে থাকতে পারবেন। যেমন, ফটোশপ বা ইলাস্ট্রেটরের প্রাথমিক ব্যবহার শিখে রাখলে তা কাজে দেবে। এর বাইরে ফেসবুক, টুইটার, লিঙ্কডইন ও অন্যান্য সোশ্যাল মিডিয়াতে যুক্ত থাকলে আপনার কাজ অনেক সহজ হয়ে আসবে।

আগে থেকে নিজের পছন্দের বিষয়ে ঠিকভাবে জানা উচিত। যেমন, ক্রীড়া সাংবাদিক হতে চাইলে খেলাধুলা বিষয়ক বই, ম্যাগাজিন ও ওয়েবসাইট থেকে আপডেট নেবার অভ্যাস থাকা কাজে দেবে।

একজন সাংবাদিক হিসেবে কপিরাইট বিষয়ক আইনের জ্ঞান থাকা আপনার জন্য জরুরি। সর্বশেষ যে বিষয়টি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ তা হলো সৃজনশীলতা। তাই নিজেকে প্রতিনিয়ত সৃষ্টিশীল করে তোলার চেষ্টা থাকা চাই।

সুযোগ পেলে কোন সংবাদপত্রে ইন্টার্নশিপ করতে পারলে অনেক কিছু শিখতে পারবেন। এছাড়া কাজের অভিজ্ঞতা থাকার কারণে প্রাধান্য পেতে পারেন চাকরিদাতাদের কাছে।

কোথায় পড়বেন সাংবাদিকতা?

বাংলাদেশের প্রায় সব সরকারি ও বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগ বিষয়টি পড়ানো হয়। এর মধ্যে কয়েকটির নাম নিচে দেয়া হলোঃ

  • ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
  • জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়
  • জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়
  • চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়
  • রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়
  • ইন্ডিপেন্ডেন্ট ইউনিভার্সিটি
  • ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস
  • স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটি

মূলধারার বিশ্ববিদ্যালয়ের বাইরে প্রেস ইন্সটিটিউট অফ বাংলাদেশ (PIB), বাংলাদেশ ইন্সটিটিউট অফ জার্নালিজম অ্যান্ড ইলেকট্রনিক মিডিয়া(BIJEM), পাঠশালা সাউথ এশিয়ান মিডিয়া ইন্সটিটিউটসহ আরো কিছু প্রতিষ্ঠানে বিভিন্ন মেয়াদে সাংবাদিকতার উপর ডিপ্লোমা কোর্স প্রদান করা হয়।

একজন সাংবাদিকের মাসিক আয় কেমন?

স্থায়ী ও অস্থায়ী মেয়াদে একজন সাংবাদিক এন্ট্রি লেভেল মাসে গড়ে ৳২০,০০০ আয় করে থাকেন। এ পেশায় অভিজ্ঞতার সাথে সাথে আয় বাড়ার সুযোগ আছে। তবে বেতন সীমা প্রতিষ্ঠান ও কাজের ধরন অনুযায়ী আলাদা হয়।

একজন সাংবাদিকের ক্যারিয়ার কেমন হতে পারে?

একজন সাংবাদিকের ক্যারিয়ার কেমন হবে, তা প্রতিষ্ঠান আর কাজের উপর নির্ভর করে।

সংবাদপত্র বা ম্যাগাজিনের ক্ষেত্রে সাধারণত একজন সংবাদদাতা হিসাবে আপনার ক্যারিয়ার শুরু হবে। ২-৩ বছরের মধ্যে কাজের মানের উপর ভিত্তি করে স্থায়ী প্রতিবেদকের পদ পাবেন। এরপর কোন নির্দিষ্ট বিভাগে উপসম্পাদনার কাজ পেতে পারেন। ক্যারিয়ারের সর্বোচ্চ পর্যায়ে একজন সাংবাদিক পুরো পত্রিকার মূল সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন।

টেলিভিশন চ্যানেল আর রেডিওর ক্ষেত্রে প্রতিবেদক কিংবা সংবাদ পাঠক/উপস্থাপক হিসাবে ক্যারিয়ার শুরু করতে পারেন। পরবর্তীতে সম্পাদক, প্রযোজক, বার্তাকক্ষ নিয়ন্ত্রকসহ অন্যান্য সিনিয়র পদে উন্নীত হবার সম্ভাবনা রয়েছে।

তথ্যসূত্র

  • ‘সাংবাদিকতা ও গণযোগাযোগে রয়েছে সুযোগ’, দৈনিক ইত্তেফাক, ৫ মে ২০১৫।
  • ‘গণমাধ্যমে ক্যারিয়ার’, দৈনিক যুগান্তর, ১২ নভেম্বর ২০১৫।
  • ‘সাংবাদিকতায় পড়াশোনা’, দৈনিক ভোরের কাগজ, ১৭ নভেম্বর ২০১৬।
  • ‘সাংবাদিক হতে সাংবাদিকতার ডিগ্রি কতখানি জরুরি?’, ঢাকা টাইমস টুয়েন্টি ফোর, ১২ অক্টোবর ২০১৭।
Loading

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।