ফিশারিজ অফিসার

ফিশারিজ অফিসার: ক্যারিয়ার প্রোফাইল - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

দেশের অভ্যন্তরীণ আমিষের চাহিদা মেটাতে মাছের ভূমিকা অপরিসীম। সেই মাছকে আরো সহজলভ্য ও সুলভ করে মানুষের পুষ্টি চাহিদা পূরণে কাজ করে যাচ্ছেন দেশের ফিশারিজ অফিসাররা। তারা উন্নত মাছের জাত উদ্ভাবন, মাছের মড়ক দমন, মাছ চাষকে উৎসাহ প্রদান করা, মৎস্য চাষীদের কারিগরি প্রশিক্ষণ প্রদান করার কাজ করে থাকেন। বিজ্ঞানভিত্তিক এ পেশার সম্ভাবনা অনেক। তাই চাইলেই ফিশারিজ অফিসার হতে পারে আপনার কাংখিত ক্যারিয়ার।

এক নজরে একজন ফিশারিজ অফিসার

সাধারণ পদবী:ফিশারিজ অফিসার
বিভাগ:মৎস্য বিভাগ ও আত্নকর্মসংস্থান
প্রতিষ্ঠানের ধরন:সরকারি, প্রাইভেট ফার্ম/কোম্পানি, ফ্রিল্যান্সিং, অন্যান্য
ক্যারিয়ারের ধরন:পার্ট-টাইম, ফুল টাইম
লেভেল:এন্ট্রি, মিড
অভিজ্ঞতা সীমা:কাজ ও প্রতিষ্ঠানসাপেক্ষ
সম্ভাব্য বেতনসীমা:৳২২,০০০ – কাজ, প্রতিষ্ঠান ও অভিজ্ঞতাসাপেক্ষ
সম্ভাব্য বয়সসীমা:কাজসাপেক্ষ
মূল স্কিল:উন্নত মাছের জাত উদ্ভাবন, মৎস্য সম্পদের রক্ষনাবেক্ষন ও চাষে উৎসাহ দেয়া
বিশেষ স্কিল:সৃজনশীলতা, বিশ্লেষণী ক্ষমতা, সমস্যা সমাধানের দক্ষতা

কোন ধরণের প্রতিষ্ঠানে একজন ফিশারিজ অফিসার কাজ করেন?

  • বাংলাদেশ মৎস্য গবেষণা ইন্সটিটিউট (বিএফআরআই);
  • জেলা মৎস্য কর্মকর্তা, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা;
  • বাংলাদেশ মৎস্য উন্নয়ন করপোরেশন;
  • মৎস্য অধিদপ্তর;
  • ওয়ার্ড ফিশ সেন্টার;
  • দেশি-বিদেশি এনজিও;
  • সকল সরকারি- বেসরকারি মৎস্য খামার;
  • ক্রাব হাচারিতে;
  • কৃষি ও সাধারণ সরকারি-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষকতা।

একজন ফিশারিজ অফিসার কী ধরনের কাজ করেন?

  • হ্যাচারি ও রেণু উৎপাদন করা;
  • পোনা ও টেবিল সাইজ মৎস্য উতপাদন করা;
  • মুক্তা উৎপাদন করা;
  • কাঁকড়া উৎপাদন করা;
  • মৎস্য খাদ্য উৎপাদন করা;
  • মৎস্য প্রক্রিয়াজাতকরণ;
  • মৎস্য সংশ্লিষ্ট সরঞ্জাম উতপাদন;
  • অনলাইনে মৎস্য তথ্য কেন্দ্র পরিচালনা।

একজন ফিশারিজ অফিসারের কী ধরনের যোগ্যতা থাকতে হয়?

  • বিএসসি ইন ফিশারিজ (অনার্স);
  • অনার্সসহ এমএসসি ইন মেরিন সায়েন্স;
  • অনার্সসহ এমএসসি প্রাণিবিদ্যা (ফিশারিজ);

এছাড়াও ফিশারিজ বায়োলজি অ্যান্ড জেনেটিক্স, ফিশারিজ ম্যানেজমেন্ট, একুয়াকালচার, ফিশারিজ টেকনোলজি নামের ৪টি বিভাগ থেকে অনুষদের এমএসসি ডিগ্রি অর্জন করলে চাকরির বাজারে আরো চাহিদা বেড়ে যায়।

একজন ফিশারিজ অফিসারের কী ধরনের দক্ষতা ও জ্ঞান থাকতে হয়?

  • বিএসসি ইন ফিশারিজ (অনার্স);
  • অনার্সসহ এমএসসি ইন মেরিন সায়েন্স;
  • অনার্সসহ এমএসসি প্রাণিবিদ্যা (ফিশারিজ);

এছাড়াও ফিশারিজ বায়োলজি অ্যান্ড জেনেটিক্স, ফিশারিজ ম্যানেজমেন্ট, একুয়াকালচার, ফিশারিজ টেকনোলজি নামের ৪টি বিভাগ থেকে অনুষদের এমএসসি ডিগ্রি অর্জন করলে চাকরির বাজারে আরো চাহিদা বেড়ে যায়।

কোথায় পড়বেন ফিশারিজ?

  • বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়;
  • ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়;
  • চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়;
  • খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়;
  • রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়;
  • সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়;
  • বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব কৃষি বিশ্ববিদ্যাল;
  • হাজী দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি;
  • পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি,
  • বাকৃবি অধিনস্ত জামালপুরের শেখ ফজিলাতুন্নেসা মুজিব ফিশারিজ কলেজ।

এছাড়াও আরো কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয়ে মাৎস্যবিজ্ঞান বিষয়ে উচ্চতর ডিগ্রি প্রদানের প্রক্রিয়া চলছে।

একজন ফিশারিজ অফিসারের মাসিক আয় কেমন?

সরকারিভাবে জাতীয় প্রতিষ্ঠানগুলোতে নিয়োগপ্রাপ্তরা জাতীয় বেতনস্কেল ২০১৫ এর নবম গ্রেড অনুযায়ী ২২,০০০/- ৫৩,০৬০/ টাকা স্কেলে বেতন পান। তবে যদি কেউ উদ্যোগতা হয়ে নিজেই খামার পরিচালনা করেন তবে মাস লক্ষাধিক টাকা বা তারও বেশি টাকা উপার্জন করা সম্ভব।

ক্যারিয়ার কেমন হতে পারে একজন ফিশারিজ অফিসারের?

বেসরকারি সংস্থা যেমন বাংলাদেশ রুরাল এডভান্সমেন্ট কমিটি (ব্রাক), প্রশিকা মানবিক উন্নয়ন কেন্দ্র প্রভৃতিতে বিভিন্ন প্রজেক্টে ফিশারিজ অফিসার হিসেবে কাজের যেমন সুযোগ আছে তেমনি আন্তর্জাতিক সংস্থা ওয়ার্ল্ড ফিস সেণ্টার, নেচার কনজারভেসন মুভমেন্টে ফিশারিজ গ্রাজুয়েটরা সম্মানের সাথে কাজ করছে। সেই সাথে ব্যক্তিগত মৎস্য খামার, হ্যাচারি, মৎস্য খাদ্য প্রস্তুতকারি কোম্পানি এবং মৎস্য প্রক্রিয়াজাতকরন শিল্পসমূহে ফিশারিজ অফিসারদের ব্যাপক কাজের সুযোগ রয়েছে। তাই আপনিও সম্মানজনক ও উন্নত আয়ের ক্যারিয়ার গড়তে চাইলে বেছে নিতে পারেন ফিশারিজ অফিসারের ক্যারিয়ার।

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।