সহকারী পরিচালক: বাংলাদেশ ব্যাংক

সহকারী পরিচালক - বাংলাদেশ ব্যাংক : ক্যারিয়ার প্রোফাইল - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

বাংলাদেশ ব্যাংকের বিভিন্ন বিভাগের দায়িত্বে নিয়োজিত থাকা কনিষ্ঠ কর্মকর্তার পদটি হচ্ছে সহকারী পরিচালক বা অ্যাসিস্ট্যান্ট ডিরেক্টর। এটি বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিসের (BCS) গ্রেড-৯ পদের সমতুল্য হিসেবে বিবেচিত হয়।

এক নজরে একজন সহকারী পরিচালক

সাধারণ পদবী: সহকারী পরিচালক
বিভাগ: ব্যাংকিং
প্রতিষ্ঠানের ধরন: সরকারি
ক্যারিয়ারের ধরন: ফুল টাইম
লেভেল: এন্ট্রি
এন্ট্রি লেভেলে সম্ভাব্য অভিজ্ঞতা সীমা: প্রযোজ্য নয়
এন্ট্রি লেভেলে সম্ভাব্য বেতনসীমা: ৳২২,০০০ – সরকারি সুযোগ-সুবিধাসাপেক্ষ
এন্ট্রি লেভেলে সম্ভাব্য বয়সসীমা: সর্বোচ্চ ৩০ বছর (মুক্তিযোদ্ধা সনদধারী ব্যক্তিদের সন্তান ও প্রতিবন্ধীদের জন্য সর্বোচ্চ বয়স ৩২ বছর)
মূল স্কিল: ব্যাংকিং সংক্রান্ত জ্ঞান, ব্যাংকিং আইন ও নীতিমালা সম্পর্কে ধারণা, সংশ্লিষ্ট বিভাগীয় জ্ঞান ও কাজের দক্ষতা
বিশেষ স্কিল: হিসাব-নিকাশের দক্ষতা, অর্থনৈতিক পরিকল্পনা করার জ্ঞান, বিশ্লেষণী দক্ষতা, মানসিক চাপ সামলানোর ক্ষমতা

একজন সহকারী পরিচালক কোথায় কাজ করেন?

একজন সহকারী পরিচালক বাংলাদেশ ব্যাংকের কেন্দ্রীয় কার্যালয় ও এর ৯ টি শাখায় কাজ করেন।

একজন সহকারী পরিচালক কী ধরনের কাজ করেন?

বাংলাদেশ ব্যাংকে ৫২ টির বেশি শাখা আছে। একজন সহকারী পরিচালকের কাজ কর্মরত শাখার উপর নির্ভর করে। তবে অন্যান্য বেসরকারি ব্যাংকের তুলনায় বাংলাদেশ ব্যাংক এ কাজের চাপ তুলনামূলক কম। কিছু বিশেষ শাখা যেমন প্রকৌশল, লাইব্রেরি, পরিসংখ্যান, গবেষণা ও অন্যান্য পেশাগত শাখা ব্যতীত সকল শাখাতেই সহকারী পরিচালক (জেনারেল) কাজ করেন। শাখাভেদে একজন সহকারী পরিচালককে অর্থনৈতিক সমীক্ষা, অর্থনৈতিক পরিকল্পনা, নীতি প্রণয়ন, বিভিন্ন নথিপত্র নিরীক্ষা সহ বিভিন্ন ধরনের কাজ করতে হয়।

একজন সহকারী পরিচালকের কী ধরনের যোগ্যতা থাকতে হয়?

প্রার্থীর শিক্ষাগত যোগ্যতা হিসেবে প্রয়োজন হবে -যেকোনো বিষয়ে স্নাতকোত্তর বা চার বছর মেয়াদি স্নাতক ডিগ্রি এবং এসএসসি ও তদূর্ধ্ব পর্যায়ের পরীক্ষায় ন্যূনতম দুইটি প্রথম বিভাগ থাকতে হবে। কোনো অবস্থাতেই তৃতীয় বিভাগে উত্তীর্ণরা এ পদের জন্য আবেদন করতে পারবে না। পেশাগত সহকারী পরিচালক যেমন প্রকৌশল, গবেষণা, মেডিকেল, পরিসংখ্যানসহ অন্যান্যদের সংশ্লিষ্ট বিষয়ে স্নাতক ডিগ্রি থাকতে হবে।

একজন সহকারী পরিচালকের কী ধরনের দক্ষতা ও জ্ঞান থাকতে হয়?

  • অবশ্যই দেশের ব্যাংকিং খাত সম্পর্কে ধারণা থাকতে হবে
  • ব্যাংকে কাজের নিয়ম-কানুন সম্পর্কে ওয়াকিবহাল থাকতে হবে
  • হিসাব-নিকাশে দক্ষ হতে হবে
  • বিশ্লেষণী দক্ষতা থাকতে হবে
  • নথিপত্র সঠিকভাবে মূল্যায়নের দক্ষতা থাকতে হবে
  • অর্থনৈতিক পরিকল্পনায় দক্ষতা অর্জন করতে হবে
  • ব্যাংক প্রশাসন সম্পর্কে জ্ঞান রাখতে হবে

সহকারী পরিচালক পদে কীভাবে নিয়োগ দেয়া হয়?

এ পদের জন্য বিগত বছরগুলোতে ৩০০ নম্বরের পরীক্ষা নেওয়া হয়েছিল। এর মধ্যে ১০০ নম্বরের প্রিলিমিনারি পরীক্ষা এবং ২০০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষা। লিখিত পরীক্ষায় ফোকাস রাইটিং ইন ইংলিশ, ক্রিয়েটিভ রাইটিং ইন ইংলিশ, ইংলিশ কম্প্রিহেনশন, ফোকাস রাইটিং ইন বাংলা, অনুবাদ—বাংলা থেকে ইংরেজি , ইংরেজি থেকে বাংলা ও গণিতের উপরে প্রশ্ন থাকে। প্রিলিমিনারিতে বাংলা, সাধারণ জ্ঞান, কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তি, ইংরেজি ও গণিত থেকে প্রশ্ন করা হয়।

একজন সহকারী পরিচালকের মাসিক আয় কেমন?

জাতীয় বেতন স্কেল ২০১৫ অনুযায়ী মূল বেতন ২২ হাজার টাকা। কাজে যোগদানের সময় ইনক্রিমেন্ট এবং অন্যান্য ভাতা সহ বেতন ৩৫-৩৭ হাজার টাকা হয়ে থাকে। এ গ্রেডে সর্বোচ্চ বেতন মাসিক ৫৩ হাজার টাকা।

একজন সহকারী পরিচালকের ক্যারিয়ার কেমন হতে পারে?

সহকারী পরিচালক হিসেবে কাজে যোগদানের পর ব্যাংকিং ডিপ্লোমা শেষ হলেই সাধারণত আড়াই থেকে চার বছরের মধ্যে ডেপুটি ডিরেক্টর হিসেবে পদোন্নতি হয়। এর উপরের পদ গুলো যথাক্রমে জয়েন্ট ডিরেক্টর, ডেপুটি জেনারেল ডিরেক্টর, জেনারেল ম্যানেজার, এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর, ডেপুটি গভর্নর এবং একদম শীর্ষে গভর্নর। তবে বাংলাদেশ ব্যাংকের শীর্ষ পদসমুহে পদন্নোতির জন্য ব্যাংকিং ও অর্থনীতিতে গভীর জ্ঞানের পাশাপাশি ব্যাংকিং নীতিমালা ও আইনে সম্পর্কে দক্ষ ও অভিজ্ঞ হতে হবে।

কেন নেবেন ক্যারিয়ার টেস্ট?

  • সরাসরি ইন্টারভিউর কল পেতে
  • সরাসরি চাকরির পরীক্ষা দিতে
  • চাকরি পরীক্ষার প্রস্তুতি নিতে
  • চাকরির জন্য দরকারি স্কিল অর্জন করতে
ক্যারিয়ার টেস্টে যান

3 thoughts on “সহকারী পরিচালক: বাংলাদেশ ব্যাংক

  1. আমি শিক্ষাগত যোগ্যতা সম্পর্কে জানতে চাই

      • যেকোন বিষয়ে স্নাতকোত্তর বা চার বছর মেয়াদি স্নাতক ডিগ্রি;
      • এসএসসি ও তদূর্ধ্ব পর্যায়ের পরীক্ষায় ন্যূনতম দুইটি প্রথম বিভাগ;
      • কোন অবস্থাতেই তৃতীয় বিভাগ থাকা যাবে না;
      • পেশাগত সহকারী পরিচালক (যেমন: প্রকৌশল, গবেষণা, মেডিকেল, পরিসংখ্যান) পদের জন্য সংশ্লিষ্ট বিষয়ে স্নাতক ডিগ্রি থাকতে হবে।

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।