ফিল্ড সুপারভাইজার

ক্যারিয়ার কন্টেন্ট - ক্যারিয়ারকী (CareerKi)

মাঠ পর্যায়ের কাজ সমন্বয়ের জন্য বাংলাদেশের বহু প্রতিষ্ঠানেই সাধারণত ফিল্ড সুপারভাইজার নিয়োগ দেওয়া হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানভেদে কাজ ও দায়িত্ব পৃথক হয়।

একজন ফিল্ড সুপারভাইজার সাধারণত কোথায় কাজ করেন?

সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান।

একজন ফিল্ড সুপারভাইজার সাধারণত কী ধরনের কাজ করেন?

১। মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের সাথে সরাসরি যোগাযোগ সমন্বয় সাধন করা।

২। মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের দাবি ও প্রয়োজনীয় সুযোগ সুবিধার ব্যাপারে প্রতিষ্ঠানকে জানানো।

৩। মাঠ পর্যায়ের কাজে কোন ধরনের অনিয়ম ও বৈষম্য যাতে না হয় তা নিশ্চিত করা।

৪। মাঠ পর্যায়ের কর্মীরা স্বাস্থ্যগত, শারীরিক এবং অর্থনৈতিক কোন সমস্যার সম্মুখীন হলে সে ব্যাপারে প্রয়োজনীয় সহায়তার জন্য প্রতিষ্ঠানকে অবগত করা এবং এ ব্যাপারে সমন্বয় সাধন করতে হয় একজন ফিল্ড সুপারভাইজারকে।

৫। পণ্য বিক্রয়ের ক্ষেত্রে বাজারজাতকরণের জন্য প্রয়োজনীয় ক্রেতার সন্ধান দিতে হয় ফিল্ড সুপারভাইজারকে।

৬। পণ্য বিক্রয়ের ক্ষেত্রে নিজের এলাকার আয় ও বিক্রয়ের একটি নির্দিষ্ট হিসাব রাখতে হয় একজন ফিল্ড সুপারভাইজারকে।

৭। মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের সংখ্যা ও কাজের অগ্রগতির পুঙ্খানুপুঙ্খ হিসাব রাখতে হয়।

৮। মাঠ পর্যায়ের কার্যক্রমের উপর একটি মাসিক রিপোর্ট জমা দিতে হয়।

৯। মাঠ পর্যায়ের কার্যক্রমের উন্নয়নের জন্য প্রধান অফিসকে প্রয়োজনীয় পরামর্শ দিতে হয়।

একজন ফিল্ড সুপারভাইজারের কী ধরনের যোগ্যতা থাকতে হয়?

১। ফিল্ড সুপারভাইজার হিসেবে নিয়োগ পেতে চাইলে আপনাকে সাধারণত যে কোন বিষয়ে স্নাতক ডিগ্রিপ্রাপ্ত হতে হবে।

২। এক্ষেত্রে পূর্ব অভিজ্ঞতা সাধারণত গুরুত্বপূর্ণ হিসেবে বিবেচ্য হয় না। নির্দিষ্ট কোন বয়সসীমার কথাও সাধারণত উল্লেখ করা থাকে না এক্ষেত্রে।

৩। ফিল্ড সুপারভাইজার হিসেবে নিয়োগের ক্ষেত্রে নারী বা পুরুষ নিয়োগের ব্যাপারে আলাদা করে উল্লেখ করা থাকে না।

৪। নিয়োগের জন্য প্রার্থীর কম্পিউটার বিষয়ক জ্ঞান থাকা আবশ্যক।   

একজন ফিল্ড সুপারভাইজারের কী ধরনের দক্ষতা ও জ্ঞান থাকতে হয়?

১। ফিল্ড সুপারভাইজারের কাজ সম্পাদনের ক্ষেত্রে বিচক্ষণ হওয়া জরুরি।

২। কঠোর পরিশ্রমী ও ধৈর্যশীল হতে হবে।  

৩। যোগাযোগ সমন্বয় ও ব্যবস্থাপনার ব্যাপারে পারদর্শী হতে হবে।  

৪। কম্পিউটার ব্যবহারে প্রয়োজনীয় সফটওয়্যার যেমন – মাইক্রোসফট ওয়ার্ড, এক্সেল, পাওয়ারপয়েন্টসহ অন্যান্য সফটওয়্যার ব্যবহারে পারদর্শী হতে হবে।

৫। কর্মীদের সাথে সম্পর্ক উন্নয়নের ক্ষেত্রে বন্ধুত্বপূর্ণ আচরণ করতে জানা ও ঠান্ডা মেজাজের হওয়া জরুরি।

৬। গাণিতিক হিসাবে পারদর্শী হতে হবে।

একজন ফিল্ড সুপারভাইজারের মাসিক আয় কেমন?

সাধারণত একজন ফিল্ড সুপারভাইজারের বেতন মাসিক ১১,০০০ – ১৫,০০০ টাকা।

 

কেন নেবেন ক্যারিয়ার টেস্ট?

  • সরাসরি ইন্টারভিউর কল পেতে
  • সরাসরি চাকরির পরীক্ষা দিতে
  • চাকরি পরীক্ষার প্রস্তুতি নিতে
  • চাকরির জন্য দরকারি স্কিল অর্জন করতে
ক্যারিয়ার টেস্টে যান

Leave a Reply

আপনার নাম ও ইমেইল ঠিকানা দেয়া আবশ্যক। তবে মতামতের সাথে ইমেইল দেখানো হবে না।